মার্চ

 

পৃষ্ঠা নং
1
 

বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়ের দুটি কবিতা


downloadকুয়াশা বিঁধেছে মাছের চোখ একজনের তির পাঁচজন কীভাবে পেল তোমার শরীর? শরীরের মধ্যে যদি থেকে থাকে মন কতক্ষণ ঘুম তার কত জাগরণ?   সে কি চুপ করে থাকে? তারও আছে ভাষা? ভোররাতে ঘুম ভেঙে গেলে যা কুয়াশা আরেকটু সকাল হলে পরে তাই আলো পাখিসব করে রব তোমাকে ঠকাল   তোমাকে ঠকাল বলে তুমি গেলে ঠকে
 
 

চ্যবন মুখুজ্জ্যেদের বার্ষিকগতি


বাসব রায়সীতাপতি মুখুজ্জ্যের দশ বাই বারো শয়নকক্ষটির চৌকাঠের সামনে দাঁড়ালেন ত্রিভঙ্গ। দরজাটা ভেতর থেকে ভেজানো। পর্যায়ক্রমে মৃদু সাঁইসাঁই আর সপাট সুড়ুৎসুড়ুৎ শব্দ ভেসে আসছে। সন্ধিপুজোয় যে ছাগবলি হয়েছিল দুর্গামন্দিরে, তারই দু’চারটুকরো ভাগ পাওয়া গিয়েছিল। চ্যবনের স্ত্রী কুমুদবতী তা দিয়ে অতিরঞ্জিত ঝোল বানিয়েছিলেন শ্বশুরমশাইয়ের জন্য, সীতাপতি সেটিই এখন উপভোগ করছেন। সাঁইসাঁইরবটি বারোমেসে শ্লেষ্মার আর সুড়ুৎ সুড়ুৎ শ্লেষ্মানিবারক
 
 

কিশোরীর চাল ধোয়া ভিজে হাত


articleকথাটা এল পিছন দিকে থেকে। ভূমধ্যসাগরের তটে দাঁড়িয়ে থাকাআলেকজান্ডার পিছন ফিরে তাকালেন। সবে আয়লানের দেহ তিনি তুলে নিয়েছেন। সামুদ্রিক বাতাসে তাদের প্রত্যেকের বসন উড়ছে। এসময় কে কথাটা বলল, তা দেখার জন্য আলেকজান্ডার ঘুরলেন। দেখলেন এক অপরূপা সুন্দরীকে। ভুরু তুলে বললেন, কে তুমি? আমি জলপরি, মহারাজ। জলপরি? মানে? এই সমুদ্রের নিচে আমার অবস্থান। কেবল আমি নয়,
 
 

উপনিবেশের উপমহাদেশে মুসলিম রাজনীতির বিকাশ প্রতিষ্ঠার গতি প্রকৃতি


সৌভিক ঘোষালঔপনিবেশিক ভারতে মুসলিম সাম্প্রদায়ের রাজনৈতিক ভাবনা চিন্তার বিশেষ একটি ধরণ সামনে আসে স্যর সৈয়দ আহমেদ ও সমমর্মীদের আলিগড় আন্দোলনের মধ্য দিয়ে। হিন্দু এলিট ও তার সঙ্গে শাসকের বোঝাপড়ার বিপরীতে তা শাসক ইংরেজের সঙ্গে এক বোঝাপড়ায় নিয়ে আসতে চায় তখনো পর্যন্ত এই নিরিখে অনেকটাই বিমুখ মুসলিম সমাজকে। সৈয়দ আহমেদ ও তাঁর প্রায় সমকালীন আমীর আলির নেতৃত্বাধীন
 
 

নতুন আলো


সৌম্য ভট্টাচার্যপর্ব ২০ নিজের বৈজ্ঞানিক আবিষ্কারে মুগ্ধ করেছেন বাংলার ছোটোলাট উডবার্নকে। প্যারিসে উড়িয়েছেন বিজয় বৈজয়ন্তী। তাহলেও জগদীশচন্দ্র স্বস্তি পাচ্ছেন না। রদ্যাঁর ভাস্কর্য প্রদর্শনীতে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। তারপর থেকে শরীর খারাপ চলছে। পেটের ব্যথা লেগেই আছে। মাঝে মাঝেই বমির দমক ওঠে। কলিক পেনে জেগে বসে থাকেন সারা রাত। তখন আফিমের গুলি ছাড়া কোনো রাস্তা নেই। আফিমের ঘোরে
 
 

মোহনা


11760328_1605506879736732_2485776285146396679_nআয়লার তোলপাড়ে সেদিন আর সুপ্রতীক ত্রিপাঠির সঙ্গে কথা হয়নি মোহনার। পরদিনই ঝড় বিদ্ধস্থ গ্রাম পঞ্চায়েতের কাজে ঝাঁপিয়ে পড়তে হয় বাকি সব কর্মচারীদের সঙ্গে। মাঝে মেইলে কথা হয় ভদ্রলোকের সঙ্গে। ভদ্রলোক আদতে সাংবাদিক। পেশায় সাংবাদিকতা। নেশায় ছবি আঁকা। খুব বেশি তথ্য জানা বলেননি। মোহনাও জিজ্ঞেস করেনি। মোহনার কর্মস্থল সম্পর্কে জিজ্ঞেস করলে তথ্য জানায় মোহনা। কলকাতায় ভদ্রলোকের
 
 

ধর্মে আছি জিরাফে নেই


অভিজিৎ চৌধুরীঅর্কদীপ্ত ভেনেজুয়েলায় ঢোকার আগে বাবাকে আরেকবার মেসেজ করল। দিল্লিতে চিত্তরঞ্জন পার্কে যে ঘরটায় ছিলাম সেটা অনেকটা আমাদের চুঁচুড়ার চার্চ লেনের মতন। দিল্লিতে চিত্তরঞ্জন পার্ককেই বাঙালী টোলা বলে। আমি উঠেছিলাম কালী মন্দিরের ধর্মশালায়। তোমাকে বললে হয়ত বঙ্গ ভবনে থাকতে পারতাম। কিন্তু ইচ্ছে করেই নিজেকে কষ্ট দিলাম। আমার একটাই স্বপ্ন ছিল জীবনে—বিশ্বভ্রমণ। মধ্যবিত্ত বাঙালী স্বপ্ন দেখে কিন্তু
 
 

গল্প-কবিতার আন্দোলন: বাংলা সাহিত্যের অন্তঃস্রোত


articleস্বাধীন ভারতবর্ষে পশ্চিমবঙ্গবাসীর প্রথম সবচেয়ে বড় স্বপ্নভঙ্গ ১৯৫৯ সালের খাদ্যসংকট। খোলা বাজার থেকে চাল এবং অন্যান্য অত্যাবশ্যক দ্রব্য উধাও হয়ে যায়। অনেকক্ষেত্রে দুর্ভিক্ষের অবস্থা তৈরি হয়। খাদ্যের দাবীতে লাগাতার সোচ্চার হয়ে গণআন্দোলন, গণবিপ্লবে অংশগ্রহণ করে সাধারণ মানুষ। এই ঐতিহাসিক অন্দোলনে অংশগ্রহণকারীদের ওপর পুলিশ নির্বচারে গুলি চালায়। বেঁচে থাকার প্রাথমিক প্রয়োজন খাদ্যের দাবিতে যে আন্দোলন, সেই আন্দোলনে সশস্ত্র
 
 
 
 
top